সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ১২:০৭ পূর্বাহ্ন
নোটিস :
Wellcome to our website...

ঢাকা-টরন্টো ফ্লাইট নিয়ে প্রবাসীদের বিপুল আগ্রহ

রিপোর্টার / ৬৩ বার
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ২৪ মার্চ, ২০২২

জাতীয় পতাকাবাহী বাংলাদেশ বিমানের ঢাকা-টরন্টো সরাসরি ফ্লাইট নিয়ে কানাডা প্রবাসীদের মধ্যে বিপুল আগ্রহ তৈরি হয়েছে; কিন্তু ফ্লাইট সংক্রান্ত প্রয়োজনীয় তথ্য-উপাত্তের ঘাটতি বিমানের ফ্লাইট নিয়ে নানা প্রশ্ন তৈরি হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট খাতের বিশেষজ্ঞরা অভিমত দিয়েছেন।

স্থানীয় সময় বুধবার রাতে কানাডার বাংলা পত্রিকা নতুনদেশ-এর প্রধান সম্পাদক শওগাত আলী সাগরের সঞ্চালনায়  শওগাত আলী সাগর লাইভের আলোচনায় তারা এই মতামত দেন।

বিমানের ঢাকা- টরন্টো সরাসরি ফ্লাইট নিয়ে কেন এতো প্রশ্ন শীর্ষক আলোচনা অংশ নেন এভিয়েশন বিশেষজ্ঞ কাজী ওয়াহিদুল আলম, বাংলাদেশে ওমান এয়ার এবং ইত্তেহাদের সাবেক কান্ট্রি ম্যানেজার খন্দকার কবীর এবং টরন্টোর ট্রাভেল এজেন্ট সুমন জাফর।

এভিয়েশন বিশেষজ্ঞ কাজী ওয়াহিদুল আলম বিমানের ঢাকা-টরন্টো সরাসরি ফ্লাইটের মাধ্যমে যাত্রী পরিবহণের পাশাপাশি ব্যবসা বাণিজ্য সম্প্রসারণের নতুন দিগন্ত উন্মোচনের সুযোগ তৈরি হয়েছে বলে মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, অভিবাসী দেশ কানাডায় বাংলাদেশ থেকে সাধারণ নাগরিক, আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীরা আসা যাওয়া করেন। তার বাইরে দুই দেশের মধ্যে রয়েছে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য সম্পর্ক। রপ্তাণি পণ্যেরও বড় বাজার কানাডা। সরাসরি ফ্লাইট তাদের জন্য অত্যন্ত সুখবর।

ঢাকা- টরন্টো সরাসরি ফ্লাইট সফরভাবে টিকিয়ে রাখার ক্ষেত্রে বিমানকে বড় ধরনের চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হবে বলে উল্লেখ করে এই বিশেষজ্ঞ বলেন, দুর্নীতিমুক্ত এবং মানসম্মত সেবার বাইরেও পরিচালনাগত বেশ কিছু  চ্যালেঞ্জ বিমানকে মোকাবেলা করতে হবে।

বাংলাদেশে ওমান এয়ার এবং ইত্তেহাদের সাবেক কান্ট্রি ম্যানেজার খন্দকার কবীর ঢাকা-টরন্টো সরাসরি ফ্লাইটকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, বিমান পরিবহণ শুধু যাত্রী বা পণ্য পরিবহণেই সীমিত নয়। বিমান চলাচলের মাধ্যমে সংস্কৃতি, পর্যটনসহ অন্যান্য খাতেও সহযোগিতা সম্প্রসারণের সুযোগ তৈরি হয়। সাধারণত উদ্বোধনী ফ্লাইটকে ঘিরেই এই সুযোগগুলো কাজে লাগানো হয়; কিন্তু বিমান সেই ধরনের কোনো ভাবনা ভেবেছে বলে মনে হয় না।

টরন্টোর বিশিষ্ট ট্রাভেল এজেন্ট সুমন জাফর বিমানের সরাসরি ফ্লাইটকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, কানাডার বিভিন্ন শহরে বসবাসরত বাংলাদেশিদের মধ্যে বিমানের সরাসরি এই ফ্লাইট নিয়ে বিশেষ আগ্রহ আছে। সবাই এই উদ্যোগকে স্বাগত জানাতে তৈরি হয়ে আছে।

আলোচনায় অংশ নিয়ে নতুনদেশ-এর প্রধান সম্পাদক শওগাত আলী সাগর বলেন, কানাডার সঙ্গে চূড়ান্ত সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষরের ৯ বছর পর বাংলাদেশের জাতীয় পতাকাবাহী বিমান এয়ালাইন্সের বহুল আকাঙ্ক্ষিত ঢাকা-টরন্টো সরাসরি ফ্লাইটের পরীক্ষামূলক চলাচল শুরু করতে যাচ্ছে। কিন্তু এই ফ্লাইট নিয়ে শুরু হয়েছে তুমুল সমালোচনা, দেখা দিয়েছে নানা প্রশ্ন। অভিযোগ উঠছে পক্ষপাতিত্ব, অপেশাদার আচরণ এবং অপচয়ের। এসব বিষয়ে বিমানের সুস্পষ্ট কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

তিনি বলেন, কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশিরা দেশপ্রেমের কারণে ছাড় দিয়ে হলেও বিমানকে আকাশ পরিবহণের জন্য গ্রহণ করতে প্রস্তুত। তবে বিমানকে স্বচ্ছতার সাথে তথ্য-উপাত্ত এবং মানসম্মত সেবা নিয়ে এগিয়ে আসতে হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর