আদম পাচারের প্রমাণ মিলেনি, দেশে ফিরছেন অনন্য মামুন

mamun-20180112173510

বিনোদন প্রতিবেদক

মানব পাচারের অভিযোগে মালয়েশিয়ায় গ্রেফতার হওয়া বাংলাদেশি চলচ্চিত্র নির্মাতা অনন্য মামুন ছাড়া পেয়েছেন। মানব পাচারের অভিযোগ প্রমানিত না হওয়ায় গত ৮ জানুয়ারি অনন্য মামুনসহ তার টিমের সকল সদস্যদের ছেড়ে দেয় দেশটির পুলিশ। অনন্য মামুন টেলিফোনে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, ছাড়া পাওয়ার পর তারা মালয়েশিয়ান হাইকমিশনে রয়েছেন। সেখান থেকে রোববার তারা দেশে ফিরবেন।

অনন্য মামুন। বলেন, ‘আমি হিংসাত্মক রাজনীতির শিকার হয়েছি। আদম পাচারের নামে আমাকে ফাঁসানো হয়েছে। আমার কর্মকাণ্ডে ঈর্শান্বিত হয়ে এ কাজ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে কুয়ালালামপুরের পেট্রুনাস টুইন টাওয়ার সংলগ্ন ওয়াসমা এমসিআই হলে বিনোদনী সংস্থা ‘সিনেমাটিক’র আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ‘বাংলাদেশি নাইটস’। সেখানে যোগ দিতে চিত্রপরিচালক অনন্য মামুনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে মালয়েশিয়া যান বাংলাদেশের একঝাঁক তারকা। অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী আসিফ আকবর, আঁখি আলমগীর, এইচ এম রানা, ইউছুফ ও ব্যান্ডদল চিরকুট। গানের সঙ্গে নাচ পরিবেশন করেন চিত্রনায়ক ইমন ও নিরব এবং চিত্রনায়িকা শখ, আইরিন, ভাবনা, আমান ও মিষ্টি। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনায় ছিলেন চিত্রপরিচালক দেবাশীষ বিশ্বাস ও প্রবাসী সাংস্কৃতিক কর্মী আরুনিমা।

মূলত এই তারকাদের সঙ্গেই পাচার হয়েছিলেন নাম-পরিচয় না জানা ওই ৫৭ জন বাংলাদেশি। তাদেরকে ‘শিল্পী’ হিসেবে ভিসা দিয়ে নেয়া হয়েছিলো মালয়েশিয়াতে। কিন্তু সেখানে তাদের ভিসা ও পাসপোর্টের তথ্যে গড়মিল পাওয়া যায় শুরু থেকেই। এতে করে ইমিগ্রেশনের সময়ই ১৫ জনকে আটক করে স্থানীয় গোয়েন্দা পুলিশ। তাদের কাছ থেকে তথ্য নিয়ে কুয়ালালামপুরের পুত্রী হোটেল থেকে আরও ১৫ জনসহ সর্বমোট পাচার হওয়া ৫৭ জনকে আটক করা হয়েছে। তাদের সঙ্গে আটক হন পরিচালক অনন্য মামুন ও মালয়েশিয়া প্রবাসী শ্যাম নামে এক বাংলাদেশি।

জাগোনিউজ২৪.কম