যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মার্কিন ফ্লাইটে ভারতীয় গ্রেপ্তার

accused-of-sex-assault

প্রবাসীকণ্ঠ ডেস্ক:
বিমানে পাশের আসনে বসা নারীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে এক ভারতীয়কে গ্রেপ্তার করেছে যুক্তরাষ্ট্র কর্তৃপক্ষ।

কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গত বুধবার স্পিরিট এয়ারলাইন্সের বিমানে লাস ভেগাস থেকে ডেট্রয়েটে যাচ্ছিলেন ৩৪ বছরের ভারতীয় প্রভু রামমূর্তি। বিমানে জানলার ধারের আসনটিতে বসেছিলেন ২২ বছরের ওই নারী। তার ঠিক পাশেই বসেছিলেন প্রভু। আর প্রভুর পাশেই ছিলেন তার স্ত্রী।

যুবতীটি পুলিশকে বলেছেন, রাতে বিমানে তিনি ঘুমিয়ে পড়ার পরই যৌন নিপীড়নের ঘটনা ঘটে। হঠাৎই ঘুম ভেঙে তিনি দেখেন, তার শার্টের বোতাম আর প্যান্টের চেন খোলা। প্রভুর হাত প্যান্টের ভেতরে। তাকে জাগতে দেখে প্রভু তাড়াতাড়ি হাত সরিয়ে নেন।

বিমানসেবিকারা ওই সময় যুবতীটিকে কাঁদতে দেখা ছাড়াও তার শার্টের বোতাম আর প্যান্টের চেন খোলা দেখতে পাওয়া কথা জানিয়েছেন।

তবে প্রভু রামমূর্তি যুবতীর অভিযোগ অস্বীকার করে পুলিশকে বলেছেন, ঘুমের ওষুধ খেয়ে ওই সময় তিনি গভীর ঘুমে ঢলে পড়েছিলেন। এমন কিছুই তিনি করেননি। বরং তার স্ত্রীই তাকে বলেন যে, মেয়েটি ঘুমের ঘোরে প্রভুর কোলে ঢলে পড়েছেন।

তারা ওই সময় বিমানসেবিকাদেরকে আসন বদলে দেওয়ার অনুরোধ করলেও তা করা হয়নি বলে পাল্টা অভিযোগ করেন প্রভু।

অস্থায়ী ভিসায় যুক্তরাষ্ট্রে রয়েছেন প্রভু রামমূর্তি। দু’বছর ধরে একটি প্রযুক্তি সংস্থায় প্রোজেক্ট ম্যানেজার হিসাবে কাজ করছেন তিনি। বিমানটি ডেট্রয়েটে নামার পরপরই তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

বৃহস্পতিবার প্রভুকে মিশিগানে ফেডারেল আদালতে হাজির করা হয়েছে। নাকচ হয়েছে তার জামিনের আবেদনও। তার বিরুদ্ধে অপরাধমূলক যৌন নির্যাতনের অভিযোগ আনা হয়েছে বলে জানিয়েছেন কৌসুলিরা।
সুত্র: বিডিনিউজ