মগবাজার-মৌচাক উড়ালসড়কেও সিঁড়ি!

প্রবাসীকণ্ঠ ডেস্ক:
মেয়র মোহাম্মদ হানিফ উড়ালসড়কের পর এবার মগবাজার-মৌচাক উড়ালসড়কেও ওঠানামার জন্য নকশাবহির্ভূতভাবে তৈরি করা হচ্ছে সিঁড়ি। তবে কতৃপক্ষ বলছে এটি জনসাধারণের জন্য নয় শুধু ট্রাফিক পুলিশের জন্য এ সিঁড়ি তৈরি করা হচ্ছে।
মগবাজার-মৌচাক উড়ালসড়ক বাস্তবায়নকারী কর্তৃপক্ষ স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী ও প্রকল্পের পরিচালক সুশান্ত কুমার পাল জানান, উড়ালসড়কের উপর ট্রাফিক সিগন্যাল থাকায় দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যদের ওঠানামায় সমস্যা হচ্ছে। এই সিঁড়ি শুধু তাদের উঠা নামার জন্যই বানানো হচ্ছে। সিঁড়ির উপরের অংশে থাকবে ট্রাফিক পুলিশ বক্স। এটা হবে মালিবাগে।
আর মৌচাক মোড়ে খুঁটি গেড়ে আরেকটি ট্রাফিক পুলিশ বক্স তৈরি করা হবে।
তিনি বলেন, ফ্লাইওভারে উঠা নামার রাস্তা অনেক দূরে হওয়ায় পুলিশের জন্য এই সিঁড়ি তৈরি করা হচ্ছে। এতে মূল উড়ালসড়কের কোনো সমস্যা হবে না এমনকি অন্য কোথাও আর সিঁড়ি নির্মাণ করা হবে না। এখানে কোন যাত্রী উঠা নামা করবে না।
এর আগে মেয়র মোহাম্মদ হানিফ উড়ালসড়ক উদ্বোধনের কিছুদিন পর যাত্রীদের দোহাই দিয়ে যাত্রাবাড়ী ও সায়েদাবাদে পৃথক তিনটি ইস্পাতের সিঁড়ি তৈরি করেছিল ওরিয়ন ইনফ্রাস্ট্রাকচার লিমিটেড। গত ১০ই জুলাই এই সিঁড়িগুলো অপসারণের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। ওই দিনই সিঁড়িগুলো বন্ধ করে দেয় ডিএসসিসি। কিছুদিন পর তা পুরোপুরি অপসারণ করা হয়।