হাটহাজারীতে অস্ত্রসহ ৬ ডাকাত আটক : মালামাল উদ্ধার

2
  • মো.আলাউদ্দীন,হাটহাজারীঃ
হাটহাজারী মডেল থানা পুলিশ অস্ত্র সহ আন্তঃজেলা ডাকাতদলের ৬ সদস্যকে আটক করেছে । গত শনিবার ও রবিবার(০৩ নভেম্বর)হাটহাজারী ও চট্টগ্রাম নগরীর বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। আটককৃতরা হল  জাহাঙ্গীর আলম(৪০), পিতা- মৃত মোঃ ইউনুছ, সাং- শাহ নগর, নয়ারহাট বাজার সংলগ্ন কাজীর বাড়ী, লেলাং, থানা- ফটিকছড়ি, চট্টগ্রাম, এ/পি- সিএন্ডবি, বরিশাল বাজার, বক্কর সাহেবের ভাড়া ঘর,  থানা- চান্দগাও, সিএমপি, চট্টগ্রাম, ২। মোঃ শাহাব উদ্দিন প্রঃ উজ্জ্বল(৩০), উভয় পিতা- মৃত মোঃ ইউনুছ, মাতা- রহিমা বেগম, সাং- শাহ নগর, নয়ারহাট বাজার সংলগ্ন কাজীর বাড়ী, লেলাং, থানা- ফটিকছড়ি, চট্টগ্রাম, এ/পি- আতুরার ডিপু, সঙ্গীত সিনেমা হল, ইদ্রিস কোম্পানীর ভাড়াঘর, থানা- পাঁচলাইশ, ৩। মোঃ জাফর আলম(৩৫), পিতা- মৃত নাজির হোসেন, মাতা- কুলসুমা বেগম, সাং- ঝিমংখালী, মিনা বাজার, নাজির হোসেনের বাড়ী, হোয়াইকং, থানা-টেকনাফ, জেলা-কক্সবাজার, এ/পি- উত্তর কুলগাও, কাঠাল বাগান, জামাল খান সড়ক খালের উত্তর পার্শ্বে, আফসার কলোনী, থানা-বায়েজিদ বোস্তামী, জেলা-চট্টগ্রাম,  ৪। আলাউদ্দিন প্রঃ আলমগীর(৩৫), পিতা- মৃত মোস্তাফিজুর রহমান, মাতা- মৃত সালেহা খাতুন, সাং- কাঞ্চন নগর, হাসি চৌধুরীর বাড়ী, মানিকপুর, ৬নং ওয়ার্ড, পোঃ বিবিরহাট, থানা- ফটিকছড়ি, চট্টগ্রাম এ/পি- সিএন্ডবি, বরিশাল বাজার, বক্কর সাহেবের ভাড়া ঘর,  থানা- চান্দগাও, সিএমপি, চট্টগ্রাম, ৫। মোঃ মানিক(২৮), পিতা- মোঃ রফিক, মাতা- জাহানারা বেগম, সাং- উত্তর রাঙ্গামাটিয়া, আদর্শগ্রাম, ১নং ওয়ার্ড, থানা- ফটিকছড়ি, চট্টগ্রাম, এ/পি- কোম্ভার পাড়া, কালুর পুকুর, নতুন কলোনী, থানা- ফটিকছড়ি, চট্টগ্রাম এবং  ৬। টিটু ধর(৪০), পিতা- মধূসুদন ধর, মাতা- শান্তিবালা ধর, সাং- হারবাং, ধর পাড়া, ওয়ার্ড নং-০৬, থানা- চকরিয়া, জেলা-কক্সবাজার, এ/পি- বালূছড়া, তুফানী রোড, হিন্দু পাড়া, মহাজন পাড়া, সারেংয়ের বিল্ডিং এর ভাড়াটিয়া, থানা- বায়েজীদ বোস্তামী, সিএমপি, চট্টগ্রাম। পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, উপজেলায় গত ৬,২৪ ও ২৮ অক্টোবরে তিনটি ডাকাতির ঘটনা সংগঠিত হয়। পরে হাটহাজারী মডেল থানায় পৃথক ৩টি ডাকাতি মামলা দায়ের করা হলে ডাকাতদের ধরতে মাঠে নামে পুলিশ। তারা আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করে আন্তঃজেলা ডাকাতদলের সদস্য জাহাঙ্গীর আলম (৪০) নামে একজনকে গ্রেফতার করার পর তার স্বীকারোক্তি মোতাবেক বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ডাকাত সদস্যদের আটক করে হয় এবং ডাকাতির ঘটনায় ব্যবহৃত একটি সিএনজি অটোরিক্সা (রেজিঃ নং- চট্টগ্রাম-থ-১১-৪২৩৫), ডাকাতি করা ৩.৫ ভরি গলিত স্বর্ণ, ১টি স্যামসাং মোবাইল, ডাকাতির ঘটনায় ব্যবহৃত ১টি এলজি, ৭ রাউন্ড কার্তুজ, ১টি লোহার তৈরি গ্রীল কাটার, ১টি চাইনিজ কুড়াল ও ২টি চাপাতি উদ্ধার করা হয়।আটককৃত সহ অজ্ঞাতনামা ৮/১০ জন ডাকাতের বিরুদ্ধে হাটহাজারী মডেল থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে, যার নং-০৩। হাটহাজারী মডেল থানার ওসি বেলাল উদ্দীন জাহাঙ্গীর আটকের সত্যতা স্বীকার করে সাংবাদিকদের জানান, ডাকাতদলের সদস্য মোঃ আলাউদ্দিন প্রঃ আলমগীর ও মোঃ মানিক ডাকাতির ঘটনার সাথে সংশ্লিষ্টতা স্বীকার করে আদালতে ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬৪ ধারা মোতাবেক জবানবন্দী প্রদান করেছে। ডাকাতি প্রতিরোধে এখন থেকে পুলিশের টহল আরো জোরদার করা হচ্ছে। রাত বারটার পর সন্দেহজনক যে কাউকে রাস্তায় পেলে তল্লাশী করা হবে। তিনি ডাকাতি প্রতিরোধে স্থানীয়দের সচেতন ও ঐক্যবদ্ধ হওয়ারও অনুরোধ জানান। উল্লেখ্য, গত ৬ অক্টোবর রাতে উপজেলার ২নং ধলই ইউনিয়নের সোনাইরকুল ব্রীজের পূর্ব পার্শ্বে সাহেব মিয়া মেম্বারের বাড়ীর মোঃ শফিউল আজম এর ঘরে, গত ২৪ অক্টোবর রাতে ০১নং ফরহাদাবাদ ইউনিয়নের বংশাল গুন্নু মিয়া সারাং বাড়ীর মোঃ শাহ আলম এর ঘরে এবং গত ২৮ অক্টোবর একই ইউনিয়নের মন্দাকিনি গ্রামের হারু চাঁদ মুন্সির বাড়ীর লুৎফন নাহার এর ঘরে ডাকাতির ঘটনা সংঘঠিত হয়েছিল।