মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশিকে কুপিয়ে হত্যা ৩ ইন্দোনেশিয়ান নাগরিক শনাক্ত

2

আহমাদুল কবির, মালয়েশিয়া:
মালয়েশিয়ায় মোঃ শামীম (৩৩)  নামে এক বাংলাদেশিকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। এঘটনায় সন্দেহ ভাজন তিনজন ইন্দোনেশিয়ান নাগরিককে প্রাথমিক শনাক্ত করেছেন কুয়ালালামপুরের ইনভেষ্টিগেটর কর্মকর্তা। তবে “ফৌজদারি কোডের ৩০২ ধারা অনুযায়ী আরোও অধিকতর তদন্ত করা হচ্ছে বলে জানালেন কুয়ালালামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দাতুক সেরি মজলান। আর এ তদন্তে যদি করো কোনো তথ্য জানা থাকে তাহলে সিনিয়র ইনভেস্টিগেটর অফিসার খায়রুলের ০১৯-২৭৬৯১১৭ না¤া^রে অথবা কুয়ালালামপুর পুলিশ লাইনের ০৩-২১৪৬ ৯৯৯৯ না¤া^ারে বা নিকটবর্তী কোনও থানায় যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরের পার্শ্ববর্তী সেগামবুট এলাকায়  ১৫ সেপ্টেম্বর রবিবার সকালে একটি প্রাইভেট কারের মধ্যে রক্তাক্ত অবস্থায় নিহত বাংলাদেশি মোঃ শামীম (৩৩) এর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত শামীমের মুখ, হাত ও পেটে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। রবিবার ময়না তদন্তের জন্য কুয়ালালামপুর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে এবং আজ সোমবার ময়না তদন্তের রিপোর্ট পাওয়া যাবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানাগেছে। পাসপোর্টের তথ্য অনুযায়ী নিহত শামীমের বাড়ি বাংলাদেশের মুন্সীগঞ্জের আকল মেঘ এলাকার মোঃ মুকলেস সোয়াল এর ছেলে। শামীম মালয়েশিযায় পরিস্কার পরিচ্ছন্ন কাজ করতো বলে জানা গেছে। মামলার তদন্ত এখনও সন্দেহভাজনকে চিহ্নিত করার পাশাপাশি ঘটনার উদ্দেশ্য সম্পর্কে জানতে তদন্ত  অব্যাহত রয়েছে বলে জানালেন সংশ্লিষ্টরা। এ বিষয়ে মালয়েশিয়াস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের শ্রম কাউন্সিলার মো: জহিরুল ইসলামের  সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি এ প্রতিবেদককে জানান, দূতাবাস থেকে তদন্ত কর্মকর্তা ও সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে যোগাযোগ অব্যাহত রয়েছে। কেন এমন ঘটনা ঘটেছে, কারা জড়িত, তাদের শনাক্ত করে বিচারের আওতায় আনা হবে বলে জানান তিনি।  এ ঘটনার আগে ২৮ আগষ্ট বুধবার আলামিন (২০) নামের এক বাংলাদেশিকে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা।
মালয়েশিয়ায়ার কেলানতানের গোয়া মোসাং শহরের সেনডোরপ লোজিংয়ের একটি সবজি ক্ষেতে কর্মরত অবস্থায় তাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয় ।
এ দিকে উদ্বেগজনকভাবে বেড়ে যাওয়া এসব ঘটনার সঠিক তদন্তের দাবি তুলেছেন মালয়েশিয়ায় বসবাসরত প্রবাসীরা। তারা বলছেন প্রবাসী কর্মীদের সুরক্ষায় দুই দেশের সরকারকেই উদ্যোগ নিতে হবে।