বিএনপির শতাধিক নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে মামলা

2

সিলেটে বিএনপির শতাধিক নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে শনিবার রাতে মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। অনুমতি ছাড়া মিছিল, জনসাধারণ ও গাড়ি চলাচলে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টিসহ সরকারি কাজে বাধা দানের অভিযোগ এনে কোতোয়ালি মডেল থানায় মামলাটি দায়ের করেন উপ-পরিদর্শক (এসআই) অনুপ কুমার। সিলেট কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সেলিম মিয়া বলেন, মামলায় ৩০ জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত ৭০ থেকে ৮০ জনকে আসামি করা হয়েছে। মামলার আসামিদের মধ্যে রয়েছেন- সিলেট জেলা যুবদলের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইকবাল বাহার চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক সাদিকুর রহমান সাদিক, স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম আহ্বায়ক আজমল হোসেন রায়হান, জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য মাহবুবুল হক চৌধুরী, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম আহ্বায়ক মওদুদুল হক মওদুদ, শাকিল মুর্শেদ, যুবদল নেতা কুহিনুর আহমদ, যুবদল নেতা আব্দুশ শুকুর, আলা উদ্দিন আলাই, দিলোয়ার হোসেন দিলু, মন্তাজ হোসেন মুন্না, মহানগর বিএনপির সদস্য শফিকুর রহমান টুটুল প্রমুখ।

বিএনপি নেতৃবৃন্দ জানান, দলীয় চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও যুবদলের কমিটি বাতিলের দাবিতে শনিবার বেলা ২টায় নগরীর মিরাবাজার থেকে বিএনপি ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা মিছিল বের করার জন্য জড়ো হন। এসময় পুলিশ তাদেরকে বাধা দেয়। বাধা উপেক্ষা করে মিছিলটি নাইওরপুল আসলে পুলিশ লাঠিচার্জ শুরু করে। বিএনপি নেতাদের দাবি এসময় তাদের বেশ কয়েকজন নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন।

আহতদের মধ্যে রয়েছেন- রিনুক আহমদ, মুহিবুর রহমান মুহিন, নুরুল আমিন, রনি আহমদ, সেলিম আহমদ, ইমন আহমদ, মুর্শেদ আলম, জুনেদ আহমদ, সাবের আহমদ প্রমুখ। লাঠিচার্জের পর নেতা-কর্মীরা ছত্রভঙ্গ হয়ে পড়েন। এর মধ্যে নেতা-কর্মীদের একটি গ্রুপ পুলিশি বাধা ও লাঠিচার্জ উপেক্ষা করে নয়াসড়ক পয়েন্টে গিয়ে সমাবেশ করে। সূত্র : ইউএনবি