অভিনয় শিল্পী সংঘের নির্বাচন

0

প্রবাসীকণ্ঠ প্রতিবেদক :
শুক্রবার শিল্পকলা একাডেমি প্রাঙ্গণে বসেছিল তারার মেলা। উৎসব ছাড়াই উৎসবমুখর হয়ে উঠেছিল পরিবেশ। উপলক্ষ একটাই, অভিনয় শিল্পী সংঘের নির্বাচন। সংগঠনের ভোটার সংখ্যা ৬৬৭ জন হলেও এ দিন উপস্থিত লোকসংখ্যা ছিল হাজারেরও বেশি। খ্যাতিমান ও নবীন অভিনয় শিল্পীদের পাশাপাশি সংস্কৃতি অঙ্গনের অনেকেই এসেছিলেন এ নির্বাচন দেখতে। সবার মাঝেই ছিল কৌতূহল; কে জিতবে, কে হারবে- তা নিয়েও জল্পনা-কল্পনার শেষ ছিল না। অন্যদিকে ভোট দিয়েই দায়িত্ব শেষ বলে তাড়াহুড়া দেখা যায়নি কারও মধ্যে। বরং বহুদিন পর এত সহশিল্পীকে একসঙ্গে পাওয়ায় গল্পের আসর জমিয়েছিলেন অনেকে। নির্বাচনের ফল যাই হোক, প্রার্থী, ভোটার আর শুভাকাঙ্ক্ষীদের এই মিলনমেলা স্মরণীয় হয়ে থাকবে- এমন কথা শোনা গেছে অনেকের কাছে। নির্বাচন কমিশনের সদস্যরা জানান, ছোট পর্দার পেশাদার অভিনয় শিল্পীদের ক্যারিয়ার সুসংহত করা, সমস্যা, সংকট থেকে উত্তরণ এবং দাবি-দাওয়া পূরণের লক্ষ্যেই এই সংগঠনের যাত্রা। ২০০১ সালে এই সংগঠন তৈরি হলেও, নানা কারণে এটি নিষ্ক্রিয় অবস্থায় ছিল। সংগঠনের কার্যক্রম গতিশীল করে তুলতেই এবারের নির্বাচন। এতে ২১টি পদের জন্য ৫১ জন শিল্পী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। সকাল ৯টা থেকে ৫টা পর্যন্ত চলেছে ভোটগ্রহণ। এ নির্বাচনে সর্বমোট ভোট দিয়েছেন ৬০৮ জন ভোটার। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ভোট গণনা চলছিল। ভোট গণনা শেষ হলেই নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশ করা হবে বলে জানান প্রধান নির্বাচন কমিশনার এসএম মহসীন।